http://bn.easyhealthpoint.com

অন্যান্য স্বাস্থ্য – সেবা

যৌন-দুর্বলতা: 

কালােজিরা চূর্ণ ও যয়তুনের তেল (অলিভ অয়েল), ৫০ গ্রাম হেলেঞ্চার রস ও ২০০ গ্রাম খাটি মধু একত্রে মিশিয়ে সকালে খাবারের পর ১চামচ করে সেব্য।  কালােজিরার মূল জারক, হেলেঞ্চা মূল জারক, প্রয়ােজনীয় আরাে কোন মূল অলিভ অয়েলও মধুসহ পরীক্ষণীয় ।

স্ত্রীরোগ , প্রসব ও ভ্রুণ সংরক্ষণঃ

কালােজিরা মৌরী ও মধু দৈনিক ৪ বার সেব্য।

চেহারার নমনীয়তা ও সৌন্দর্যবৃদ্ধিঃ

অলিভ অয়েল ও কালােজিরা তেলমিশিয়ে অঙ্গে মেখে ১ ঘন্টা পর সাবান দিয়ে। ধুয়ে ফেলুন।

শ্বেতীঃ 

আক্রান্ত স্থানে আপেল দিয়ে ঘষে কালােজিরা তেল লাগান। ১৫দিন হতে ১মাস।

আরও জানতে এখনি ভিজিট করুন  

 

 

http://bn.easyhealthpoint.com

দ্রুত ওজন কমানোর উপায়

মেদ কমবে ভিটামিন সি তে: 

মেদ ঝরানাের জন্য কত শত চটকদার বিজ্ঞাপন থাকে রাস্তায়! কেউ বিজ্ঞাপনের  ফাঁদে পরেন। আবার কেউ নিজেই উদ্যোগী হন মেদ ঝরাতে । কত বর্ণ, – গন্ধ ও – স্বাদের খাবারের উপর থেকে যে চোখ সরিয়ে নিতে হয়। 

ওজনটা যে কমাতেই হবে যে কোনও মূল্যে! বাড়তি ওজনের বিড়ম্বনা । রেহাই পেতেই চলে এইসব হিসাব নিকাশ। ওজন কমাতে তাই অধিক সময়টা আধ পেট খেয়েই উঠতে হয়। আবার কেউ কেউ এক ধাপ এগিয়ে ডাক্তার বাড়ি পর্যন্ত যাচ্ছেন মুটিয়ে যাওয়া রােধে। আর তাই ওজনটা নির্দিষ্ট গন্ডিতে বাধতে বিজ্ঞানীরাও গবেষণা চালাচ্ছিলেন বহুদিন ধরে। সম্প্রতি তারা দিয়েছেন এক জলবৎ তরলং সমাধান। ওজন কমানাের অস্ত্র হিসেবে তারা বেছে নিয়েছেন ভিটামিন ‘সি’ কে। গবেষণায় দেখা যায় ভিটামিন ‘সি’ নির্দিষ্ট পরিমাণ মেদ পুড়িয়ে ফেলে শরীরের । কারাে শরীরে যদি ভিটামিন ‘সি’ র উপস্থিতি কম থাকে তাদের ফ্যাট বার্ন কম হয়। ফলে তাদের মুটিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে বেশি। আর যাদের রক্তে ভিটামিন সি এর পরিমান বেশি থাকে তাদের ফ্যাট বার্ন হয় অন্য তুলনায়। অন্তত ২৫ ভাগ বেশি। তাই ভিটামিন সি সমৃদ্ধ খবার খাওয়ার পাশাপাশি করে নিন সামান্য ব্যয়াম। তাতে মেদ ঝরানাে আরাে ত্বরান্বিত হবে নিশ্চিত। ফলের মধ্যে আমলকি, পেয়ারা, লেবু, কমলা, আঙুর, স্ট্রবেরি, লিচু । আরও জানতে,  এখনি ভিজিট করুন  

 

bn.easyhealthpoint.com

ক্যান্সার প্রতিরােধ

ক্যান্সারঃ 

প্রতিটি মানুষের কাছেই  ক্যান্সার একটি খুবই পরিচিত শব্দ। যা প্রতিটি জীব দেহের জন্য মরণ ব্যধি। তবে ভয়ে কিছু নেই, যদি  আমার পোস্টগুলো নিয়মিত অনুসরণ করেন ও কার্যে পরিণত করতে পারেন। তবেই ইনশাআল্লাহ মরন ব্যধি ক্যান্সার থেকে মুক্তি লাভ করা সম্ভব!              

ক্যান্সার প্রতিরােধ করে:

ভিটামিন সি-তে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট শরীরের কোষ ও ডিএনএ-এর ক্ষতি  হওয়া থেকে রক্ষা করে। তাছাড়া এই ভিটামিন শরীরের ইমিউন সিস্টেম বা রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা ভালো। রেখে ক্যান্সারের সঙ্গে যুদ্ধ করার ক্ষমতা বাড়ায় এবং ক্যান্সার প্রতিরোধ  করতে সাহায্য করে।

 

এই ভিটামিন প্রায় সব ধরনের ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায় 

বিজ্ঞানীদের মতে, ভিটামিন সি সরাসরি ক্যান্সারের কোষে আঘাত করে না। বরং শরীরের রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা ভালাে রেখে ক্যান্সারের সঙ্গে যুদ্ধ করতে সাহায্য করে। আরও জানতে , এখনি ভিজিট করুন

 

http://bn.easyhealthpoint.com

কিডনি রােগ

কিডনি রােগ ভয়াবহ কিন্তু প্রতিরােধযােগ্য।কিডনি রােগ নীরব ঘাতক। বাংলাদেশে প্রায় দুই কোটিরও অধিক লােক কোন না কোন কিডনি রােগে আক্রান্ত। কিডনি বিকল হয়ে প্রতি ঘন্টায় ৫ জনের মৃত্যু হচ্ছে। কিডনি রােগের চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। বাংলাদেশের শতকরা ১০ ভাগ লােকেরও পক্ষে, এর দীর্ঘ মেয়াদী চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়ার সামর্থ্য নেই। সাধারনত ৭৫ ভাগ কিডনি নষ্ট হওয়ার আগে রােগীরা বুঝতেই পারে না যে, সে মরণঘাতক ব্যধিতে আক্রান্ত। দীর্ঘস্থায়ী কিডনি রােগ শুধু কিডনি বিকলই করে না সাথে অন্যান্য রােগ; যেমন- হৃদরােগ, ব্রেইন স্ট্রোক রক্তনালীর রােগে মৃত্যুর ঝুঁকি বহুলাংশে বাড়িয়ে দেয়। ডায়াবেটিস, উচ্চরক্তচাপ ও কিডনি প্রদাহ এই তিন কারণে শতকরা ৮০ ভাগ ক্ষেত্রেই কিডনি বিকল হয়ে থাকে। ভয়াবহ এই মরণ ঘাতক ব্যধি থেকে বাঁচার একমাত্র সহজ উপায় কিডনি রােগ প্রতিরােধ। সুসংবাদ হল একটু সচেতন হলেই এবং জীবনধারা পরিবর্তনের মাধ্যমে ৫০ থেকে ৬০ ভাগ ক্ষেত্রে কিডনি বিকল প্রতিরােধ করা সম্ভব। তাই আসুন আমরা সবাই মিলে এই ভয়াবহ কিডনি রােগ প্রতিরােধে এগিয়ে আসি। আরও জানতে , এখনি ভিজিট করুন

http://bn.easyhealthpoint.com

স্বাস্থ্য-ও-সৌন্দর্য

স্বাস্থ্য সুরক্ষায় রয়েছে গাজরের অনন্য উপকারিতা, তার মধ্যে কিছু উপকারিতা হচ্ছে :

 

 .চোখের জ্যোতি বৃদ্ধি:

 গাজর চোখের জ্যোতি বৃদ্ধিতে কার্যকর ভূমিকা পালন করে। গাজরে উপস্থিত বিটা ক্যারোটিন পরবর্তিতে ভিটামিন এ‘তে রূপান্তরিত হয়। ভিটামিন এ দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করে,চোখের কোষকলা তৈরিতে সাহায্য করে। রাতকানা ইত্যাদি রােগ প্রতিরােধ করে।

.ক্যান্সার প্রতিরোধ করে

বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গিয়ছে গাজর ক্যান্সার প্রতিরোধ সহায়ক ।নিয়মিত গাজর খেলে ব্রেস্ট ক্যাপার, কোলােন ক্যান্সার ও ফুসফুসের কান্সারের ঝুঁকি কমে। কারণ গাজরে আছে পলি-এসিটিলিন অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট  , যা ক্যান্সারের কোষ তৈরিতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে।

৩. বয়স ধরে রাখেঃ

নিয়মিত খাবার তালিকায় গাজর রাখলে শরীরের বয়সজনিত ক্ষতিগ্রস্ত কম হয়। বয়সের কারণে কোষের ক্ষতি রোধ করতে গাজরের ভুমিকা অপরিসী।  আরও জানতে এখনি ভিজিট করুন  

 

bn.easyhealthpoint.com

স্বাস্থ্য-ও-পুষ্টি

জেনে নিন কাঁচকলার গুণ, যা জানলে অবাক হবেন!

কাঁচকলা একটি গুরুত্বপূর্ণ সবজি। এটি পাকা কলা থেকে সম্পূর্ণ আলাদা। এর বৈজ্ঞানিক নাম সুসা প্যারাডিসিকা। কাঁচকলা অত্যন্ত পুষ্টিকর। পুষ্টিবিজ্ঞানীদের তথ্যমতে এতে রয়েছে কার্বোহাইড্রেট, প্রােটিন, ফ্যাট, লােহা, ভিটামিন ‘এ’ অক্সালিক অ্যাসিড, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, পটাসিয়াম, থায়াসিন, রিবােফ্ল্যাবিন ও ভিটামিন ‘সি’। একটি কাঁচকলা খােসা সমেত টুকরাে টুকরাে করে কেটে প্রতিরাতে পানিতে ভিজিয়ে রেখে পরদিন সকালে ওই পানি পান করলে আমাশয় রােগ নির্মূল হয় । এভাবে এক মাস খেতে হবে। এ ছাড়া পেটের অসুখে কাঁচকলা সিদ্ধ করে টাটকা টক দইয়ের সাথে মেখে খেলে রােগ সারে। কাঁচকলা শুকিয়ে গুঁড়া করে প্রতিদিন অল্প পরিমাণ দুধের সাথে মিশিয়ে খেলে যৌনব্যাধি ও প্রস্রাবের অসুখ সারে । আরও জানতে , এখনি ভিজিট করুন

কালােজিরার পুষ্টি ও ঔষধি গুণ

http://bn.easyhealthpoint.com/

নবী  করিম (সাঃ) মৃত্যু ব্যতীত সকল রােগ আরােগ্যকারী ওষুধ সম্পর্কে জ্ঞান দান করেছেন- “তােমাদের জন্য ‘সাম’ ব্যতীত সকল রােগের আরােগ্য রয়েছে কালোজিরায় । আর সাম হলাে মৃত্যু। ” সুতরাং কালাে জিরা হােক আমাদের নিত্য সঙ্গী। সু-স্বাস্থ্য অর্জনে ও সংরক্ষণে কালােজিরা জাত ওষুধ গ্রহণে কোনপার্শ্বপ্রতিক্রিয়া বা জটিলতা সৃষ্টি করে না। সর্ব রােগের মহৌষধ হােমিওপ্যাথিক ও দেশীয় চিকিৎসায় সহযােগী ওষুধ রূপে এর ব্যবহার। 

কালােজিরায় কি আছে ? 

এর মধ্যে রয়েছে ফসফেট, লৌহ, ফসফরাস, কার্বোহাইড্রেট ছাড়াও জীবাণু নাশক বিভিন্ন উপাদান সমূহ। এতে রয়েছে ক্যন্সার প্রতিরােধক কেরােটিন ও শক্তিশালী হরমােন, প্রস্রাব সংক্রান্ত বিভিন্ন রােগ প্রতিরােধকারী উপাদান, পাচক এনজাইম ও অনাশক উপাদান এবং অম্লরােগের প্রতিষেধক।

রােগ প্রতিরােধক:

মস্তিষ্ক, চুল, টাক ও দাঁদ, কান, দাঁত, টনসিল, গলাব্যথা, পােড়া নারাঙ্গা বা বিসর্গ, গ্রন্থি পীড়া, ব্রন, যাবতীয় চর্মরােগ, আঁচিল, কুষ্ঠ, হাড়ভাঙ্গা, ডায়াবেটিস, রক্তের চাড় ওকোলেস্টরেল, কিডনী, মূত্র ওপিত্তপাথরী, লিভার ও প্লীহা, ঠাণ্ডা জনিত বক্ষব্যাধি, হৃদপিণ্ড ও রক্তপ্রবাহ, অম্লশূল বেদনা, উদরাময়, পাকস্থলী ও মলাশয়, প্রষ্টেট, আলসার ও ক্যান্সার, চুলপড়া, মাথাব্যথা, অনিদ্রা, মাথা ঝিমঝিম করা, মুখশ্রী ও সৌন্দর্য রক্ষা, অবসন্নতা -দুর্বলতা, নিষ্কিয়তা ও অলসতা, আহারে অরুচি, মস্তিষ্কশক্তি তথা স্মরণশক্তি বাড়াতেও কালােজিরা উপযােগী। কালােজিরার যথাযথ ব্যবহারে দৈনন্দিন জীবনে বাড়তি শক্তি অর্জিত  হয়। এর তেল ব্যবহারে রাতভর আপনি প্রশান্তিপূর্ণ ন্দ্রিা যেতে পারেন। প্রতিরােধক কালাে জিরা দেহের রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা বাড়ায়।

ঔষধ প্রস্তুতঃ

আগেই বলেছি-আমরা কালাে জিরার টীংচার, বড়ি ও তেল ওষুধ হিসেবে ব্যবহার করছি। কখনাে এককভাবে কখনাে অন্য ওষুধের সাথে সংমিশ্রিত করে রােগীক্ষেত্র প্রয়ােগ করে থাকি। কালােজিরা তেলের সাথে জলপাই তেল, নিম। তেল, রসুনের তেল, তিল তেল মিশিয়ে নেয়া যায় ।

ব্যবহারঃ কালােজিরা জারক+কমলার রস কালােজিরা + পুদিনা চায়ের সাথে কালােজিরা কালােজিরা + রসুন + পেঁয়াজ কালােজিরা + গাজর ।

http://bn.easyhealthpoint.com   http://bn.easyhealthpoint.com  http://bn.easyhealthpoint.combn.easyhealthpoint   http://bn.easyhealthpoint.com  http://bn.easyhealthpoint.com  http://bn.easyhealthpoint.com  http://bn.easyhealthpoint.com   http://bn.easyhealthpoint.com http://bn.easyhealthpoint.com  http://bn.easyhealthpoint.com   http://bn.easyhealthpoint.com

ব্লগ সাইট bn.easyhealthpoint.com এ আপনাকে স্বাগতম ...

স্বাস্থ্য সম্পর্কে নিয়মিত তথ্য এই সাইটে পোস্ট করা হয়.. সুতারাং, স্বাস্থ্য সম্পর্কে নিয়মিত তথ্য পেতে আমাদের সাইটটি নিয়মিত ভিজিট করুন ৆

http://bn.easyhealthpoint.com

স্বাস্থ্য-ও-পুষ্টি

জেনে নিন কাঁচকলার গুণ, যা জানলে অবাক হবেন!

কাঁচকলা একটি গুরুত্বপূর্ণ সবজি। এটি পাকা কলা থেকে সম্পূর্ণ আলাদা। এর বৈজ্ঞানিক নাম সুসা প্যারাডিসিকা। কাঁচকলা অত্যন্ত পুষ্টিকর। পুষ্টিবিজ্ঞানীদের তথ্যমতে এতে রয়েছে কার্বোহাইড্রেট, প্রােটিন, ফ্যাট, লােহা, ভিটামিন ‘এ’ অক্সালিক অ্যাসিড, ক্যালসিয়াম, ফসফরাস, পটাসিয়াম, থায়াসিন, রিবােফ্ল্যাবিন ও ভিটামিন ‘সি’। একটি কাঁচকলা খােসা সমেত টুকরাে টুকরাে করে কেটে প্রতিরাতে পানিতে ভিজিয়ে রেখে পরদিন সকালে ওই পানি পান করলে আমাশয় রােগ নির্মূল হয় । এভাবে এক মাস খেতে হবে। এ ছাড়া পেটের অসুখে কাঁচকলা সিদ্ধ করে টাটকা টক দইয়ের সাথে মেখে খেলে রােগ সারে। কাঁচকলা শুকিয়ে গুঁড়া করে প্রতিদিন অল্প পরিমাণ দুধের সাথে মিশিয়ে খেলে যৌনব্যাধি ও প্রস্রাবের অসুখ সারে ।

http://bn.easyhealthpoint.com

অন্যান্য স্বাস্থ্য – সেবা

যৌন-দুর্বলতা: 

কালােজিরা চূর্ণ ও যয়তুনের তেল (অলিভ অয়েল), ৫০ গ্রাম হেলেঞ্চার রস ও ২০০ গ্রাম খাটি মধু একত্রে মিশিয়ে সকালে খাবারের পর ১চামচ করে সেব্য।  কালােজিরার মূল জারক, হেলেঞ্চা মূল জারক, প্রয়ােজনীয় আরাে কোন মূল অলিভ অয়েলও মধুসহ পরীক্ষণীয় ।

স্ত্রীরোগ , প্রসব ও ভ্রুণ সংরক্ষণঃ

কালােজিরা মৌরী ও মধু দৈনিক ৪ বার সেব্য।

স্নায়ুবিক উত্তেজনা :

কফির সাথে কালােজিরা সেবনে দূরীভূত হয়।

চেহারার নমনীয়তা ও সৌন্দর্যবৃদ্ধিঃ

অলিভ অয়েল ও কালােজিরা তেলমিশিয়ে অঙ্গে মেখে ১ ঘন্টা পর সাবান দিয়ে। ধুয়ে ফেলুন।

http://bn.easyhealthpoint.com

স্বাস্থ্য-ও-সৌন্দর্য

স্বাস্থ্য সুরক্ষায় রয়েছে গাজরের অনন্য উপকারিতা, তার মধ্যে কিছু উপকারিতা হচ্ছে :

 

 .চোখের জ্যোতি বৃদ্ধি:

গাজর চোখের জ্যোতি বৃদ্ধিতে কার্যকর ভূমিকা পালন করে। গাজরে উপস্থিত বিটা ক্যারোটিন পরবর্তিতে ভিটামিন এ‘তে রূপান্তরিত হয়। ভিটামিন এ দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধি করে,চোখের কোষকলা তৈরিতে সাহায্য করে। রাতকানা ইত্যাদি রােগ প্রতিরােধ করে।

২.ক্যান্সার প্রতিরোধ করে

বিভিন্ন গবেষণায় দেখা গিয়ছে গাজর ক্যান্সার প্রতিরোধ সহায়ক ।নিয়মিত গাজর খেলে ব্রেস্ট ক্যাপার, কোলােন ক্যান্সার ও ফুসফুসের কান্সারের ঝুঁকি কমে। কারণ গাজরে আছে পলি-এসিটিলিন অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট  , যা ক্যান্সারের কোষ তৈরিতে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করে।

৩. বয়স ধরে রাখেঃ

নিয়মিত খাবার তালিকায় গাজর রাখলে শরীরের বয়সজনিত ক্ষতিগ্রস্ত কম হয়। বয়সের কারণে কোষের ক্ষতি রোধ করতে গাজরের ভুমিকা অপরিসী।

৪.ওজন কমায় :

গাজরের যেহেতু প্রচুর পুষ্টি গুণ আছে এবং খেতেও মজা তাই ওজন কমাতে গাজরের জুড়ি নেই। সপ্তাহে কমপক্ষে ছয়টি গাজর খেলে তা স্ট্রোকের ঝুঁকি কমায় । তাই ওজন কমাতে বেশি বেশি গাজর খান। দাঁত ও মাড়ির স্বাস্থ্য রক্ষায় গাজরের ভূমিকা আছে। সৌন্দর্য চর্চায় গাজরের রয়েছে খ্যাতি, বিশেষ করে ত্বক ও চুলের যত্নে গাজরের উপযােগিতা রয়েছে।

৫.ত্বকের শুষ্কতা দূর করেঃ

ত্বকে পর্যাপ্ত পরিমাণে পানি এবং পটাশিয়াম থাকলে ত্বক শুষ্ক হয়ে যায়।দিন গাজরের জুস খেলে তুকে পটাশিয়ামের অভাব দূর হবে এবং ত্বকের আদ্রতা বজায় থাকবে।

৬.চুল পড়া রোধঃ

চুল পড়া রোধে গাজরে  উপস্থিত ভিটামিন ও মিনারেল অতি কার্যক। গাজর চুল পড়া কমায়,চুলকে শক্ত, মজবুত ও ঝলমলে করে।

bn.easyhealthpoint.com

ক্যান্সার প্রতিরােধ

ক্যান্সারঃ

প্রতিটি মানুষের কাছেই  ক্যান্সার একটি খুবই পরিচিত শব্দ। যা প্রতিটি জীব দেহের জন্য মরণ ব্যধি। তবে ভয়ে কিছু নেই, যদি  আমার পোস্টগুলো নিয়মিত অনুসরণ করেন ও কার্যে পরিণত করতে পারেন। তবেই ইনশাআল্লাহ মরন ব্যধি ক্যান্সার থেকে মুক্তি লাভ করা সম্ভব!

ক্যান্সার প্রতিরােধ করে:

ভিটামিন সি-তে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট শরীরের কোষ ও ডিএনএ-এর ক্ষতি  হওয়া থেকে রক্ষা করে। তাছাড়া এই ভিটামিন শরীরের ইমিউন সিস্টেম বা রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা ভালো। রেখে ক্যান্সারের সঙ্গে যুদ্ধ করার ক্ষমতা বাড়ায় এবং ক্যান্সার প্রতিরোধ  করতে সাহায্য করে।

 

এই ভিটামিন প্রায় সব ধরনের ক্যান্সারের ঝুঁকি কমায় 

বিজ্ঞানীদের মতে, ভিটামিন সি সরাসরি ক্যান্সারের কোষে আঘাত করে না। বরং শরীরের রােগ প্রতিরােধ ক্ষমতা ভালাে রেখে ক্যান্সারের সঙ্গে যুদ্ধ করতে সাহায্য করে।

 

http://bn.easyhealthpoint.com

কিডনি রােগ

কিডনি রােগ ভয়াবহ কিন্তু প্রতিরােধযােগ্য।কিডনি রােগ নীরব ঘাতক। বাংলাদেশে প্রায় দুই কোটিরও অধিক লােক কোন না কোন কিডনি রােগে আক্রান্ত। কিডনি বিকল হয়ে প্রতি ঘন্টায় ৫ জনের মৃত্যু হচ্ছে। কিডনি রােগের চিকিৎসা অত্যন্ত ব্যয়বহুল। বাংলাদেশের শতকরা ১০ ভাগ লােকেরও পক্ষে, এর দীর্ঘ মেয়াদী চিকিৎসা চালিয়ে যাওয়ার সামর্থ্য নেই। সাধারনত ৭৫ ভাগ কিডনি নষ্ট হওয়ার আগে রােগীরা বুঝতেই পারে না যে, সে মরণঘাতক ব্যধিতে আক্রান্ত। দীর্ঘস্থায়ী কিডনি রােগ শুধু কিডনি বিকলই করে না সাথে অন্যান্য রােগ; যেমন- হৃদরােগ, ব্রেইন স্ট্রোক ও রক্তনালীর রােগে মৃত্যুর ঝুঁকি বহুলাংশে বাড়িয়ে দেয়। ডায়াবেটিস, উচ্চরক্তচাপ ও কিডনি প্রদাহ এই তিন কারণে শতকরা ৮০ ভাগ ক্ষেত্রেই কিডনি বিকল হয়ে থাকে। ভয়াবহ এই মরণ ঘাতক ব্যধি থেকে বাঁচার একমাত্র সহজ উপায় কিডনি রােগ প্রতিরােধ। সুসংবাদ হল একটু সচেতন হলেই এবং জীবনধারা পরিবর্তনের মাধ্যমে ৫০ থেকে ৬০ ভাগ ক্ষেত্রে কিডনি বিকল প্রতিরােধ করা সম্ভব। তাই আসুন আমরা সবাই মিলে এই ভয়াবহ কিডনি রােগ প্রতিরােধে এগিয়ে আসি।

http://bn.easyhealthpoint.com

দ্রুত ওজন কমানোর উপায়

মেদ কমবে ভিটামিন সি তে: 

মেদ ঝরানাের জন্য কত শত চটকদার বিজ্ঞাপন থাকে রাস্তায়! কেউ বিজ্ঞাপনের  ফাঁদে পরেন। আবার কেউ নিজেই উদ্যোগী হন মেদ ঝরাতে । কত বর্ণ, – গন্ধ ও – স্বাদের খাবারের উপর থেকে যে চোখ সরিয়ে নিতে হয়।

ওজনটা যে কমাতেই হবে যে কোনও মূল্যে! বাড়তি ওজনের বিড়ম্বনা । রেহাই পেতেই চলে এইসব হিসাব নিকাশ। ওজন কমাতে তাই অধিক সময়টা আধ পেট খেয়েই উঠতে হয়। আবার কেউ কেউ এক ধাপ এগিয়ে ডাক্তার বাড়ি পর্যন্ত যাচ্ছেন মুটিয়ে যাওয়া রােধে। আর তাই ওজনটা নির্দিষ্ট গন্ডিতে বাধতে বিজ্ঞানীরাও গবেষণা চালাচ্ছিলেন বহুদিন ধরে। সম্প্রতি তারা দিয়েছেন এক জলবৎ তরলং সমাধান। ওজন কমানাের অস্ত্র হিসেবে তারা বেছে নিয়েছেন ভিটামিন ‘সি’ কে। গবেষণায় দেখা যায় ভিটামিন ‘সি’ নির্দিষ্ট পরিমাণ মেদ পুড়িয়ে ফেলে শরীরের । কারাে শরীরে যদি ভিটামিন ‘সি’ র উপস্থিতি কম থাকে তাদের ফ্যাট বার্ন কম হয়। ফলে তাদের মুটিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে বেশি। আর যাদের রক্তে ভিটামিন সি এর পরিমান বেশি থাকে তাদের ফ্যাট বার্ন হয় অন্য তুলনায়। অন্তত ২৫ ভাগ বেশি। তাই ভিটামিন সি সমৃদ্ধ খবার খাওয়ার পাশাপাশি করে নিন সামান্য ব্যয়াম। তাতে মেদ ঝরানাে আরাে ত্বরান্বিত হবে নিশ্চিত। ফলের মধ্যে আমলকি, পেয়ারা, লেবু, কমলা, আঙুর, স্ট্রবেরি, লিচু

About My Blogs Site

bn.easyhealthpoint.com এ স্বাস্থ্য সম্পর্কে নিয়মিত প্রয়োজনীয় তথ্য পোস্ট করা হয়।যা, প্রতিটি মানুষের জন্য সুস্থ-সবল ভাবে জীবনযাপন করতে জানা একান্ত প্রয়োজন । সুতারাং, স্বাস্থ্য সম্পর্কে নিয়মিত তথ্য পেতে আমাদের সাইটটি নিয়মিত ভিজিট করুন।

Contact Details

MD.Mahmudul Hossain,
Dhaka, Bangladesh

Email: bogmahmudul1@gmail.com
Website: http://bn.easyhealthpoint.com